নাঈম শেখ ও আবাহনীর টিম ম্যানেজমেন্ট নিয়ে কিছু কথা!

Page Visited: 230
68 Views

নাঈম শেখ ও আবাহনীর টিম ম্যানেজমেন্ট নিয়ে কিছু কথা!২০১৮-১৯ মৌসুমে ডিপিএলে ১৬ ম্যাচে ৫৩.৮০ গড়ে করেছিলেন ৮০৭ রান— যা আসরে ২য় সর্বাধিক রান। সর্বোচ্চ রান ছিলো ১৩৬।২০১৯ বিপিএলে ১২ ম্যাচে ৩২.৬৩ গড়ে করেছিলেন ৩৫৯ রান— যা আসরে নবম সর্বাধিক। সর্বোচ্চ ৭৮। ২০২০ বঙ্গবন্ধু কাপে ১০ ম্যাচে ২৬ গড়ে করেছিলেন ২৬০ রান— যা আসরে অষ্টম সর্বাধিক। সর্বোচ্চ ১০৫ রান।

২০১৯-২০ মৌসুমে চলমান ডিপিএলে ১৩ ম্যাচে ৩০.২৭ গড়ে করেছেন ৩৩৩ রান— আসরে এখনপর্যন্ত চতুর্থ সর্বাধিক। সর্বোচ্চ ৭০ রান। তার মানে, গত ৩-৪ বছরে বিসিবি কর্তৃক যতোগুলো টুর্নামেন্ট আয়োজন করা হয়েছে— সবগুলো টুর্নামেন্টে সেরা দশেই ছিলেন মোহাম্মদ নাঈম শেখ। আর এসবগুলোই অর্জন এসেছে ওপেনার হিসেবে। স্বীকৃত ক্রিকেটে এখনপর্যন্ত নাঈম শেখ খুব সম্ভবত একবার নিচে ব্যাটিং করেছে। তাও সেটা তিন নাম্বারে।অথচ, চলমান ডিপিএলে ফর্মে থাকা নাঈমকে নামিয়ে আনা হচ্ছে কখনও পাঁচ নাম্বারে, কখনওবা ছয় নাম্বারে— যা একজন ওপেনিং ব্যাটসম্যানের সাথে বড্ড বেশি বেমানান। আপনি লজিক দেখাতে পারেন যে, আবাহনী দলে ওপেনার বেশি থাকায় নাঈম শেখ কে নিচে নামানো হচ্ছে, তাদের বলবো ভাই, মানলাম মুনিম শাহরিয়ার ফর্মে রয়েছেন— কিন্তু লিটন দাসও কি ফর্মে?লিটন কয়েক সিরিজ ধরে নিজেকে হারিয়ে খুঁজছে। তাছাড়া, লিটন কে কি তিন নাম্বারে খেলানো যেতোনা? যেহুতু তার নিচে খেলার প্রমানও রয়েছে।

আমরা জানি— নাঈম শেখ ক্রিজে এসে একটু সময় নেন। সময়ের সাথে সাথে খোলস ছেড়ে বের হয়ে আসেন। যা আমরা বিগত টুর্নামেন্টগুলোতে দেখেছি। তাছাড়া ঘরোয়া ক্রিকেটে নিজেকে ওপেনার হিসেবে প্রমাণ করেই আজ তিনি জাতীয় দলে ওপেনিং ব্যাটসম্যান। কেউ তাঁর চেহারা দেখে ওপেনার বানিয়ে দেয়নি। যদি বিশ্ব ক্রিকেটের দিকে তাকান, তাহলে দেখা যায়— লোয়ারঅর্ডার বা মিডলওর্ডার থেকে টপ অর্ডারে ব্যাটিংয়ে এসে ভালো করতে করতে তাঁরা প্রতিষ্ঠিত ব্যাটসম্যান হয়ে গেছে। কিন্তু টপ অর্ডার বা ওপেনারদের কে নিচে নামিয়ে ফল হয়েছে, এমন খুব একটা হয়েছে তা আমার চোখে অন্তত পড়েনি।সর্বোপরি বলবো, নাঈম শেখ কে নিয়ে কোনো এক্সপেরিমেন্ট না করে তাঁকে তাঁর পজিশনে খেলতে দিন— সে দলের চাহিদা পূরণ করবে ইন শা আল্লাহ! তাছাড়া তাঁকে যদি ফিনিশার বানানোর মতো ভয়ংকর সিদ্ধান্ত নেয় খালেদ মাহমুদ সুজন বা আবাহনী টিম ম্যানেজমেন্ট, তাহলে দল তাঁর থেকে যে প্রত্যাশা করে তা অপূরনীয় রয়ে যাবে। তাই খুব করে চাই, আগামি ম্যাচ থেকে নাঈম শেখ কে দিয়ে ইনিংস ওপেন করাক ডিপিএলের সর্বোচ্চ শিরোপাধারী দল আবাহনী লিমিটেড! আপনার মতামত কি?

লিখেছেন কন্ট্রিবিউটর মোহাম্মদ জিলানী

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *